রাজ্যের পাশে কেন্দ্র! প্রাথমিক ভাবে ১ হাজার কোটি টাকার সাহায্যের ঘোষণা মোদীর, মৃত-আহতদের পরিবারকেও সাহায্য

আমাদের ভারত, ২২ মে: মুখ্যমন্ত্রীর ডাকে সাড়া দিয়ে আজ আমফানে বিধ্বস্ত এলাকা কপ্টার ঘুরে দেখেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সঙ্গে ছিলেন মুখ্যমন্ত্রী, রাজ্যপাল সহ কেন্দ্রীয় ২ মন্ত্রী। দুর্গত এলাকা ঘুরে দেখার পর বসিরহাটে প্রশাসনিক বৈঠকে বসেন। সেখান থেকেই তিনি ঘোষণা করেন রাজ্যকে প্রাথমিক ভাবে ১হাজার কোটি টাকার সাহায্য ঘোষণা করেন। একই সঙ্গে দুর্যোগে মৃতদেহ পরিবারকে ২ লাখ ও আহতদের ৫০ হাজার টাকা সাহায্যের ঘোষণা করেন।

এদিন সকাল এগারোটা নাগাদ কলকাতায় আসেন প্রধানমন্ত্রী। এরপর হেলিকপ্টারে মুখ্যমন্ত্রী ও রাজ্যপালকে সাথে নিয়ে আমফান বিধ্বস্ত এলাকা কপ্টারে ঘুরে দেখেন। তারপর যান বসিরহাটে। সেখানে এক ঘন্টারও বেশি সময় ধরে প্রশাসনিক বৈঠক করেন প্রধানমন্ত্রী। সেখানে মুখ্যমন্ত্রী ঘূর্ণিঝড়ে রাজ্যের বিস্তৃর্ন এলাকার ক্ষয়ক্ষতির একটি রিপোর্ট তুলে ধরেন বলে জানা গেছে। বৈঠকে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয় ও দেবশ্রী চৌধুরী সহ রাজ্যের একাধিক মন্ত্রী ও আমলারা ছিলেন।

বৈঠকের পর প্রধানমন্ত্রী সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে জানান। গোটা দেশ বাংলার পাশে আছে। একই সঙ্গে বিপর্যয় সামাল দিতে মুখ্যমন্ত্রীর প্রশংসা করেন তিনি। কেন্দ্র ও রাজ্য মিলে ক্ষতি কম করার চেষ্টা চলছে। বাংলাকে আবার ঘুরে দাঁড়াতে সাহায্য করবে কেন্দ্র বলেও জানান তিনি। প্রাথমিক ভাবে বাংলার জন্য ১০০০ কোটি টাকার সাহায্য ঘোষণা করেন। তিনি জানান কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দল আসবে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ বিস্তারিত ভাবে খতিয়ে দেখতে। এছাড়াও মৃতদের পরিবার পিছু ২ লাখ ও আহতদের জন্য ৫০ হাজার টাকা সাহায্যের ঘোষণা করেন প্রধানমন্ত্রী।

বসিরহাটের বৈঠকের পর তিনি বেড়িয়ে যান বিমান বন্দরের উদ্দেশ্যে। এরপর তিনি ওড়িশা যাবেন ও সেখানেও আমফান বিধ্বস্ত এলাকা ঘুরে দেখবেন বলে জানা গেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here