লকডাউনে সঙ্কটে মৃৎশিল্পীরা 

আমাদের ভারত, পূর্ব মেদিনীপুর, ১৬ জুন: 
লকডাউনে টান পড়েছে মৃৎশিল্পীদের জীবিকায়। পূর্ব মেদিনীপুর জেলার পটাশপুর দু’নম্বর ব্লকের প্রতাপদিঘি এলাকার অধিকাংশ মানুষই মাটির বিভিন্ন জিনিসপত্র তৈরি করে সংসার চালান। কিন্তু বর্তমান ভাইরাসের কারণে লকডাউন পরিস্থিতিতে বন্ধ পূজা-পার্বণ  বাজার ঘাট, ফলে মাটির জিনিসপত্র তৈরি করে জীবিকা অর্জনে ভাটা পড়েছে এইসব মৃৎশিল্পীদের। তারই মধ্যে গোদের উপর বিষফোঁড়ার পরিস্থিতি তৈরি করেছে বৃষ্টি, মাটির তৈরি হাঁড়ি, কলসি, পানীয় জলের কুঁজো, প্রদীপ, সরা ইত্যাদি নানান জিনিস তৈরি করে রোদে শুকোতে পারছেন না এই সব শিল্পীরা। ফলে এক কঠিন সমস্যার মুখে পড়ে গিয়েছেন এইসব মৃৎশিল্পীরা।

এদিকে প্রশাসনের পক্ষ থেকেও কোনো পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে না বলে  শিল্পীদের অভিযোগ। দেওয়া হচ্ছে নাকোনো সুযোগ সুবিধা। ফলে দুশ্চিন্তায় দিন কাটছে তাদের। স্থানীয়  মৃৎশিল্পী ক্ষুদিরাম বেরা জানান, লকডাউন চলতে থাকায় ব্যবসা এখন বন্ধের মুখে, ফলে খুব দুশ্চিন্তায় রয়েছি। প্রশাসনের তরফ থেকে যদি এই বিষয়ে কোনো ব্যবস্থা করে দেওয়া হয় তাহলে শিল্পীরা উপকৃত হব।

পূর্ব মেদিনীপুর জেলা পরিষদের সভাধিপতি দেবব্রত দাস জানিয়েছেন, লকডাউনের ফলে জেলায় মৃৎশিল্পের সঙ্গে যুক্ত পরিবারগুলির আর্থিক সঙ্কটের বিষয়টি জানতে পেরেছি। জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হবে। তা ছাড়াও প্রাকৃতিক দুর্যোগের পর থেকে পরিবারগুলিকে চাল ও অন্যান্য খাদ্য সামগ্রী দিয়ে সহযোগিতা করা হচ্ছে।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here