রেড জোনে মদের দোকান খোলার প্রতিবাদে তমলুকে জেলা আবগারি দপ্তর ও জেলাশাসকের দপ্তরে বিক্ষোভ

আমাদের ভারত, পূর্ব মেদিনীপুর, ৫ মে: পূর্ব মেদিনীপুর জেলায় কোভিড ১৯ আক্রান্ত বেশ কয়েকজন। এই পরিস্থিতিতে রেড জোন হওয়া সত্বেও মদ দোকান খোলার অনুমতি দেওয়ার বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখায় এসইউসিআই’য়ের মহিলা সংগঠন এআইএমএসএস, যুব সংগঠন এআইডিওয়াইও, ছাত্র সংগঠন এআইডিএসও ও সারা বাংলা পরিচারিকা সমিতি পূর্ব মেদিনীপুর জেলা কমিটির পক্ষ থেকে জেলা আবগারি দপ্তর এবং জেলা শাসকের কাছে ডেপুটেশন এবং বিক্ষোভ দেখানো হয়। সম্প্রতি রাজ্য সরকার মদের দোকান খোলার অনুমতি দেওয়ার ফলে যেভাবে স্বাস্থ্য বিধি ভঙ্গ করে মদ কেনার জন্য অনভিপ্রেত ভিড় জমেছে, তা ঠেকাতে পুলিশ প্রশাসন ব্যর্থ বলে অভিযোগ আন্দোলনকারীদের। এতে সমাজে সংক্রমণ বাড়ার এবং সংক্রমণ রোখার সব রকমের চেষ্টা ব্যর্থ হওয়ার আশঙ্কা বিক্ষোভকারীদের।

বিক্ষোভকারীদের বক্তব্য, এমনিতেই কোভড ১৯ প্রতিরোধে ও চিকিৎসায় মদ্যপান ক্ষতিকারক বলে চিকিৎসকদের উপদেশ এবং লকডাউনে ঘরবন্দি দশা সাংসারিক গন্ডগোল বাড়ছে বলে সমীক্ষায় প্রকাশ পেয়েছে বলে সংসঠনগুলির অভিযোগ। পরিচারিকা সমিতির পক্ষে অসীমা পাহাড়ি, মহিলা সংগঠনের তমলুকের সম্পাদিকা প্রতিমা জানা, ডিএসও’র পক্ষে সুদর্শন মান্না এবং ডিওয়াইএ’র পক্ষে মঞ্জুশ্রী মাইতি বলেন, এমনিতেই মানুষ কাজ হারিয়ে খাবার ও বিভিন্ন রোগের ঔষধ জোগাড় করতেই হিমশিম খাচ্ছে। তার ওপর মদের দোকান খুললে গৃহবিবাদ, অশান্তি আরো বাড়বে।

রাজ্য সরকারের কাছে বর্তমানে মদ বিক্রির ক্ষতিকারক নীতি প্রত্যাহারের দাবি জানাচ্ছে সংগঠনের সদস্যরা। পূর্ব মেদিনীপুর জেলা রেড জোনের মধ্যে পড়েছে। ফলে এই জেলার কোনও স্থানে মদের দোকান যাতে খোলা না হয় তার জন্য কার্যকরি ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য আবগারি দপ্তরের আধিকারিকের কাছে এবং জেলাশাসকের কাছে ডেপুটেশন দেওয়া হয়।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here