আদিবাসী বাড়ি থেকে মাটি নিয়ে তিন জায়গায় সিধু-কানুর মূর্তি স্থাপন করবে পুরুলিয়া জেলা তৃণমূল

সাথী দাস, আমাদের ভারত, পুরুলিয়া, ৭ জুলাই: মানবাজারে সিধু কানুর মূর্তি ভাঙ্গার ঘটনায় বিজেপিকে দোষারোপ করে আসরে নামল তৃণমূল কংগ্রেস। ‘বিজেপি আশ্রিত দুষ্কৃতী মানবাজারে কানু মূর্মূর মূর্তি ভেঙ্গেছে’ এই অভিযোগে সরব হল জেলা তৃণমূল। এই ঘটনাকে রাজনৈতিক রঙ দিয়ে আদিবাসী সম্প্রদায়ের মধ্যে আবেগ ছড়িয়ে দিতে একাধিক কর্মসূচি গ্রহণ করেছে তৃণমূল। মঙ্গলবার, পুরুলিয়া শহরের দলীয় কার্যালয়ে একটি সাংবাদিক সম্মেলনে সে কথা জানান জেলা তৃণমূল কংগ্রেস সভাপতি তথা রাজ্যের পশ্চিমাঞ্চল উন্নয়ন বিষয়ক দফতরের মন্ত্রী শান্তিরাম মাহাতো। 

রাজ্য তৃণমূল আদিবাসী সেলের সভাপতি দেবু টুডু, অনগ্রসর শ্রেণি কল্যাণ দফতরের রাষ্ট্রমন্ত্রী সন্ধ্যারানি টুডুকে পাশে নিয়ে তৃণমূল জেলা সভাপতি জানান, ‘মানবাজারের কাদলাগড়া জুনিয়ার হাই স্কুল চত্বরে  থাকা কানু মুর্মুর মূর্তি ৩০ জুন ভাঙ্গে বিজেপি কর্মী বৈদ্যনাথ মান্ডি। বিজেপি আশ্রিত দুষ্কৃতীরা বাংলা সংস্কৃতির উপর আঘাত করছে এই ভাবে। এই ঘটনার ধিক্কার জানাচ্ছি একই সঙ্গে প্রতিবাদও জানাচ্ছি আমরা।’

৮ থেকে ১৪ জুলাই এই ঘটনার কথা জেলার আদিবাসী অধ্যুষিত এলাকায় গিয়ে প্রচার করবে তৃণমূল। ১৫ জুলাই থেকে ১৪ আগস্ট পর্যন্ত ওই সব এলাকার বাড়িতে বাড়িতে পৌঁছাবেন তৃণমূল কংগ্রেসের ভোট কর্মীরা। ওই বাড়িগুলি থেকে মাটি সংগ্রহ করে মানবাজারের কাদলাগড়ায় সিধু কানুর মূর্তি নতুন করে স্থাপন করা হবে। এছাড়া বান্দোয়ান এবং কাশীপুরে সংগৃহীত মাটি  দিয়ে সিধু-কানু মুর্মুর মূর্তি স্থাপন করা হবে। এদিন দলের সেই পরিকল্পনার কথা জানান তৃণমূল জেলা সভাপতি।

বিজেপির মানবাজার মন্ডল সভাপতি বাণীকুমার বলেন, ‘এইভাবে আদিবাসী সম্প্রদায়ভুক্ত মানুষের মন পেতে রাজনৈতিক কৌশল অবলম্বন করছে তৃণমূল।  বিজেপি মূর্তি ভাঙ্গার রাজনীতিতে বিশ্বাস করে না। বিগত নির্বাচনগুলোতে আদিবাসীরা তৃণমূল কংগ্রেসের থেকে মুখ ফিরিয়ে নিয়েছে। আর তাই, আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে আদিবাসী সম্প্রদায়ের মন পেতে মূর্তি ভাঙ্গার নাটক করে জনসমক্ষে তুলে ধরতে চাইছে তৃণমূল। আমরা চাই মূর্তি ভাঙ্গার সঠিক পর্যায়ে তদন্ত হোক।’

এদিন তৃণমূলের সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন জেলা সভাধিপতি সুজয় বন্দ্যোপাধ্যায়, সহ-সভাধিপতি প্রতিমা সরেন, বিধায়ক রাজীব লোচন সরেন, দলের জেলা আহ্বায়ক গুরুপদ টুডু ও অন্যান্য নেতৃত্ব।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here