বীরভূমকে বীরভূমি করে গেছে রাজেশ ওরাং: রাজ্যপাল

আশিস মণ্ডল, বীরভূম, ১৭ জুলাই : “রাজেশ ওরাং বীরভূমকে বিরভূমি করে দিয়ে গিয়েছে”। শুক্রবার বীরভূমের মহম্মদ বাজারের বেলগড়িয়া গ্রামে শহিদ রাজেশ ওরাংয়ের বাড়িতে এসে একথা বললেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকর।

এদিন সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে দেওয়া ১১ লক্ষ টাকার চেক রাজেশের মায়ের হাতে তুলে দেন রাজ্যপাল। তবে তাঁর এই সফরে সঙ্গী ছিলেন না বীরভূম জেলা শাসক মৌমিতা গোদারা কিংবা পুলিশ সুপার শ্যাম সিংহ। এনিয়ে গুরুত্ব দিতে চাননি রাজ্যপাল। তিনি বলেন, “রাজেশ ওরাং দেশের জন্য আত্মবলিদান দিয়েছেন। রাজেশ বার্তা দিয়ে গেল দেশ তাঁর কাছে আগে। কবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর এখানে শান্তিনিকেতন প্রতিষ্ঠা করে গিয়েছেন। ৫১ সতী পিঠের মধ্যে এই জেলায় রয়েছে ৫ পীঠ। কয়লা, বালি, পাথর, খড়ি মাটির মতো সম্পদ রয়েছে এ জেলায়। এ জেলায় জন্মগ্রহণ করেছেন নোবেল জয়ী অমর্ত্য সেন, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রাজেশ ওরাং আমাদের কাছে আরও একটি মার্গ দর্শন হয়ে থাকল। তিনি আমাদের প্রেরনা দিয়ে গিয়েছেন। রাজেশের মৃত্যুতে মা ছেলেকে হারিয়েছে, বোন দাদাকে হারিয়েছেন কিন্তু তার পরিবার আজ গোটা দেশকে পাশে পেয়েছেন”।

করোনা বিষয়ে নিয়ে বক্তব্য রাখতে গিয়ে রাজ্যপাল বলেন, “আমার অনুরোধ নিজে বাঁচতে, পরিবাকে বাঁচাতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখুন। কিন্তু দুঃখ হয় শিক্ষিত সমাজ যখন স্বাস্থ্যবিধি না মেনে চলাফেরা করেন তখন। দেশে দিন দিন করোনা ভয়ঙ্কর হারে বাড়ছে। এই রোগকে খতম করতে হলে আমাদের সকলকে সচেতন হতে হবে”।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here