তৃণমূল পার্টি অফিসের দখল নিয়ে গন্ডগোল মেদিনীপুরের লোহাটিকরিতে

জে মাহাতো, আমাদের ভারত, মেদিনীপুর, ২৮ সেপ্টেম্বর: পার্টি অফিসের দখল নিয়ে তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব থামাতে শেষ পর্যন্ত হস্তক্ষেপ করতে হল পুলিশকে।

যুযুধান দুই গোষ্ঠীকে সরিয়ে দিয়ে তৃণমূল অফিসে তালা ঝুলিয়ে দিল দলের কর্মী সমর্থকরা। দলীয় কার্যালয়ের দখল নিয়ে অফিস ভাঙ্গচুর চালানোর অভিযোগ ওঠে দলেরই অন্য গোষ্ঠীর বিরুদ্ধে। মঙ্গলবার সকালে ঘটনাটি ঘটেছে মেদিনীপুর সদর ব্লকের লোহাটিকরিতে। সেখানে তৃণমূলের বুথ কার্যালয়ে ভাঙ্গচুর চালানোর পর বিজেপির পতাকা লাগিয়ে দেওয়ার অভিযোগ ওঠে দলেরই বুথ সভাপতি গঙ্গাধর ঘোষ ও তার অনুগামীদের বিরুদ্ধে। একাধিক চেয়ার টেবিল ভাঙ্গা হয় বলে অভিযোগ। তারপরই প্রাক্তন বুথ সভাপতি নন্দন রাউতের নেতৃত্বে কর্মীরা বিক্ষোভ দেখাতে থাকে। পরিস্থিতি সামাল দিতে পৌঁছায় গুড়গুড়িপাল থানার পুলিশ।

তবে ভাঙ্গচুর ও বিজেপির পতাকা লাগানোর অভিযোগ অস্বীকার করেন বর্তমান বুথ সভাপতি গঙ্গাধর ঘোষ। তিনি বলেন, প্রচারে আসার জন্য গন্ডগোল করে ঝামেলা করার চেষ্টা করছে কিছু লোক। দলের স্থানীয় কর্মীদের অনেকেরই অভিযোগ, তৃণমূলের বুথ সভাপতি পরিবর্তন নিয়ে দলীয় কোন্দলের ফলে এই ঘটনা। ঘটনার পর দু’পক্ষই হাজির হয় গুড়গুড়িপাল থানায়। পরিস্থিতি সামাল দিতে দু’পক্ষকেই কার্যালয় থেকে বের করে দিয়ে তালা লাগানো হয়েছে।

ওই এলাকার প্রাক্তন তৃণমূলের বুথ সভাপতি নন্দন রাউত বলেন, নতুন করে তৃণমূলের এই এলাকার বুথ সভাপতি করা হয়েছে গঙ্গাধর ঘোষ নামে একজনকে। যিনি  বিজেপি নেতা ছিলেন। তিনি লোকজন নিয়ে এসে এই কার্যালয়ে বিজেপির পতাকা লাগিয়ে ভাঙ্গচুর করেছেন। এটা আমরা মেনে নেব না। ক্ষোভ সৃষ্টি হয়েছে ব্লক সভাপতি গৌতম দত্তের বিরুদ্ধেও।

নন্দন রাউত ও তার অনুগামীদের অভিযোগ, গৌতম দত্ত বিজেপির বি টিম। বিজেপির লোকজনকে প্রতিটি বুথে দায়িত্বে দিতে চাইছেন। বুথ সভাপতি পরিবর্তনে প্রাক্তন ও বর্তমানের মধ্যে গন্ডগোলের ঘটনায় চরম অস্বস্তিতে শাসক শিবির।

তৃণমূলের ব্লক সভাপতি গৌতম দত্ত জানিয়েছেন, একটা বিচ্ছিন্ন ঘটনা ঘটেছে, বিষয়টা আমরা নিজেদের মধ্যে মিটিয়ে নিচ্ছি। এটা বড় কোনও সমস্যা হবে না।

তবে জেলা সভাপতি সুজয় হাজরা বলেন, বিজেপি থেকে যারা এসেছেন তারাই এরকম গন্ডগোল ও সমস্যা তৈরি করার চেষ্টা করছে।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here