গোপন ছবি ফাঁস করে দেওয়ার হুমকি চিঠি দিয়ে বিয়ে ভাঙার চেষ্টা, জলপাইগুড়িতে পুলিশের জালে যুবতীর স্কুলের বন্ধু

আমাদের ভারত, জলপাইগুড়ি, ২৭ নভেম্বর: ‘আপনার মেয়ের বিয়ের আর্শীবাদ হয়ে গিয়েছে। কিন্তু আমার কাছে আপনার মেয়ের গোপন ছবি আছে। পঞ্চাশ হাজার টাকা দিতে হবে। না দিলে গোপন ছবি ফাঁস করে দেব।’ এই ভাবে দু’পাতা চিঠি লিখে বান্ধবী’র পরিবারকে হুমকি দেওয়ার অভিযোগ উঠল স্কুলের এক বন্ধুর বিরুদ্ধে। জলপাইগুড়ি শহরের ঘটনা। হুমকি চিঠি পেয়ে কোতোয়ালি থানার দ্বারস্থ হলেন যুবতীর পরিবার। ফাঁদ পেতে অভিযুক্তকে গ্রেফতার করল সাদা পোশাকের পুলিশ। ধৃতের নাম বাপি তন্ত্র, শহরের টুপামারির বাসিন্দা। রবিবার ধৃতকে আদালতে তোলা হয়।

এই অভিযোগ পাওয়ার পর ধন্দে পড়ে যায় পুলিশ। শনিবার সকালে শহরের এক যুবতী বাড়ির বারান্দায় হুমকি চিঠি পাওয়া যায়। ওই যুবতীর বিয়ে ঠিক হয় দিন কয়েক আগে। আর্শিবাদ ও বিয়ের দিনক্ষণ হয়ে গিয়েছে বলে দাবি পরিবারের। এরই মধ্যে হুমকি চিঠি দিয়ে পঞ্চাশ হাজার টাকা না দিলে গোপন ছবি ফাঁস করে দেওয়া হবে বলে চিঠিতে উল্লেখ করা হয়। শহরের বাবু পাড়ার বিধায়কের ফ্ল্যাটের নীচে এক মোবাইল দোকানে দুপুর দু’টোর মধ্যে টাকা প্যাকেট করে দিতে আসতে বলা হয়। না দিলে গোপন ছবি ভাইরাল করে দেওয়ার হুমকি দেওয়া হয় বলে দাবি। এরপর পরিবার থানায় দ্বারস্থ হলে সাদা পোশাকের পুলিশ ফাঁদ পেতে টাকার মত দেখতে একটি প্যাকেট পরিবারের সদস্যকে দিয়ে মোবাইলের দোকানে পৌঁছে দিয়েছিলেন। পরে প্যাকেট নিতে এসে পুলিশের জালে ধরা পড়ে যুবতী’র স্কুলের এক বন্ধু৷

পুলিশি জেরায় ধৃত বাপি জানায়, নিজের হাতে হুমকি চিঠি লিখে টাকার দাবি করে সে। যুবতীর গোপন ছবি তাঁর কাছে নেই।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here