ভাটপাড়া পৌরসভা দখল নিয়ে তৃণমূলকে কটাক্ষ সায়ন্তনের

আমাদের ভারত, মেদিনীপুর, ২ জানুয়ারি: ভাটপাড়া পৌরসভা দখলে আনার জন্য বেআইনিভাবে বিজেপি কাউন্সিলরদের  মিথ্যে মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ আনলেন রাজ্য বিজেপি দলের সম্পাদক সায়ন্তন বসু। বৃহস্পতিবার মেদিনীপুরে বিদ্যাসাগর হলে ৮টি জেলার মন্ডল সভাপতি ও সাংগঠনিক সভাপতিদের নিয়ে এক বৈঠকে যোগ দিতে আসেন তিনি। 

এনআরসি ও সিএএ’র প্রতিবাদ যেভাবে অলিতে গলিতে ছড়িয়ে পড়েছে তার পাল্টা জবাব দিতে বিজেপির নেতা কর্মীরা কিভাবে পথে নামবেন সে বিষয়ে দিকনির্দেশ করতেই এদিনের বৈঠক বলে বিজেপি দলীয় সূত্রে জানা গেছে। 

এদিন সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে ভাটপাড়া পুরসভা ১৯-০ ভোটে তৃণমূল পুনরায় দখল করা প্রসঙ্গে সায়ন্তন বসু বলেন, ওইদিন ভাটপাড়া পুরসভায় বৈধভাবে সভা ডাকা হয়নি। বেআইনী ভাবে সভা ডাকা হয়। পুলিশ বিজেপি কাউন্সিলরদের হুমকি দিয়ে বলেছে পুরসভার কাছে এলেই গ্রেপ্তার করা হবে। সাংসদ , বিধায়কদের নামে মিথ্যে মামলা দায়ের করা হয়েছে। 

কয়েক মাস পর পুরভোট হলে বিজেপিই সেখানে জিতবে। সায়ন্তন বসু এদিনের সভায় বলেন, মুখ্যমন্ত্রীর হুমকি উড়িয়ে অনলাইনে এনআরসি ও সিএএ ফর্ম পূরণ করার ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে কেন্দ্র সরকার। 

দিল্লিতে প্রজাতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠানে বাংলার ট্যাবলো বাতিল প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এর মাধ্যমে দেশের ও পশ্চিমবঙ্গের মান সম্মান নিচু করে দেখানো হয়। একটা রাজনৈতিক বার্তা দেওয়া হয়। এতে একটা রাজ্য ও দেশ সম্পর্কে ভুল বার্তা যায়। ওই ট্যাবলো বাতিল করে সঠিক পদক্ষেপ নিয়েছে প্রতিরক্ষা মন্ত্রক বলে তাঁর মত। 

সায়ন্তন বসু অভিযোগ করেন, কেশপুরে তৃণমূলের হাতে আক্রান্ত হচ্ছেন বিজেপি কর্মীরা। আর পুলিশ বিজেপি নেতাদের কেশপুরে যেতে নিষেধ করছেন। যাঁদের জোর করে মামলার ভয় দেখিয়ে তৃণমূলে যোগদান করানো হয়েছে তারা সকলেই বিজেপির সঙ্গেই রয়েছে বলে দাবি করেন বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসু।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here