বিজেপি কর্মীর একটা হাতের পাঞ্জা কাটলে, দুটো হাতে পাঞ্জা সহ পায়ের পাতা কেটে নেওয়া হবে, তৃণমূলকে হুঁশিয়ারি শান্তনু ঠাকুরের

সুশান্ত ঘোষ, আমাদের ভারত, উত্তর ২৪ পরগণা, ২১ জুন: বনগাঁ লোকসভা কেন্দ্রের বিজেপি সাংসদ শান্তনু ঠাকুর কড়া হুঁশিয়ারি দিলেন তৃণমূলকে। তিনি পরিষ্কার জানিয়ে দিলেন একটা বিজেপি কর্মী সমর্থকদের উপরে আক্রমণ হলে পাল্টা প্রতিরোধ গড়বে বিজেপি। শান্তনুবাবু বলেন, বিজেপির একটা কর্মীর পাঞ্জা কাটা গেলে, তার বদলা হিসাবে সেই তৃণমূল কর্মীর দুই হাতের পাঞ্জা ও পায়ের পাতা কেটে নেওয়া হবে। রবিবার উত্তর ২৪ পরগনার গাইঘাটার চাদপাড়া এলাকায় জমি মাফিয়াদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ মিছিলে এসে এমন ভাবে বিরোধিদের আক্রমণ করেন শান্তনু ঠাকুর।

আজই রাজ্যের সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেছেন, তৃণমূলের হিংসার প্রতিরোধ মন্ত্র যপ করে থামানো যাবে না। তাই আমি বদল ও বদলার ডাক দিয়ে কোনও ভুল করিনি। রবিবার বিকেলেই সাংসদ শান্তনু ঠাকুর সেই পথে নেমে জানিয়ে দিলেন, হিংসার প্রতিরোধ হিংসা দিয়েই হবে। তিনি পরিষ্কার জানিয়ে দিলেন বিজেপি কর্মীদের উপর যদি আক্রমণ হয়, কর্মীরা আর চুরি পরে বসে থাকবে না। একটা কর্মীর যদি পাঞ্জা কেটে নেওয়া হয় তাহলে তার পাল্টা হিসাবে তৃণমূলের সেই কর্মীর দুই হাতের পাঞ্জা সহ পায়ের পাতা কেটে নেওয়া হবে। সম্প্রতি কোনও এক তৃণমূল নেতা বক্তব্য রাখতে গিয়ে শান্তনু ঠাকুরকে গাইঘাটার শাহেনশা বলায় তার উত্তরে শান্তনু ঠাকুর বলেন, আমি যদি শাহেনশা হই, তাহলে আমি তাই, আমি তাদের কাছে শাহেনশা, যারা দুর্নীতি গ্রস্থ, সাধারণ মানুষকে বঞ্চিত করে নিজেরা ভোগ করছে আমি তাদের কাছে শাহেনশা। এদিন গাইঘাটার বিভিন্ন এলাকায় প্রতিবাদ মিছিল করে বিক্ষোভ দেখায় বিজেপি কর্মীরা।

চাদপাড়া মণ্ডল সভাপতি বিশ্বজিত ঘোষ বলেন, গাইঘাটা ব্লকে আমফান ঝড়ের ক্ষতিগ্রস্তদের ক্ষতিপূরণ বঞ্চিত করে তৃণমূল নেতারা ভাগাভাগি করে নিয়েছে। এছাড়া বিজেপি সমর্থকদের হুমকি দিচ্ছে তৃণমূল না করলে হাত কেটে নেব। কখনও বাড়ি বাড়ি ঢুকে খুনের হুমকি দিচ্ছে তৃণমূলের দুষ্কৃতীরা এমনই অভিযোগ। দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে গাইঘাটা থানায় অভিযোগ করতে গেলে থানা থেকে কোনও অভিযোগ নেওয়া হয় না।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here