পুরুলিয়ায় দলীয় সম্মেলনে সুকান্ত- মিঠুন, দুদিন পরই একই জায়গায় পাল্টা সভা করবে তৃণমূল

সাথী দাস, পুরুলিয়া, ২২ নভেম্বর: পঞ্চায়েত ভোটের নির্ঘণ্ট ঘোষণার আগেই পুরুলিয়ায় রাজনৈতিক লড়াই শুরু করে দিল বিজেপি ও তৃণমূল। একই মাঠে দুই দিনের ব্যবধানে সভা করছে বিজেপি ও তৃণমূল। পুরুলিয়ার হুড়া ব্লকের লোধুড়কা গ্রামের মাঠ হয়ে উঠছে সেই সভাস্থল। বুধবার ওই মাঠে দলীয় জেলা পঞ্চায়েত কার্যকর্তা সম্মেলন করবেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার। মুখ্য বক্তা হিসেবে তিনি থাকবেন। তাঁর সঙ্গে মুখ্য অতিথি হিসেবে থাকবেন অভিনেতা তথা বিজেপির জাতীয় এক্সিকিউটিভ সদস্য বিজেপি নেতা মিঠুন চক্রবর্তী। সভার শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি খতিয়ে দেখতে দিনভর মাঠে ছিলেন বিজেপি জেলা সভাপতি বিবেক রাঙা, জেলা নেতা আব্দুল আলিম আনসারি সহ অন্যান্য নেতৃত্ব। বিবেক বলেন, “এটা আমাদের রুটিন সম্মেলন। শুধু পরীক্ষার সময় আমরা পড়াশোনা করি না, সারা বছর নিয়মিত পড়ি। কাজেই ভোট পরীক্ষায় আমাদের সমস্যা হবে না।”

জেলা বিজেপি সূত্রে জানা গিয়েছে, বুধবার দুপুর ১২ টায় কর্মী সম্মেলন করবেন রাজ্য সভাপতি। বুথ স্তরের এই সভার পরই পুরুলিয়া শহরে শ্যাম ধর্মশালায় দুপুর সাড়ে তিনটে থেকে যথাক্রমে জেলার মণ্ডল সভাপতিদের, জেলা কমিটি ও জেলার পদাধিকারীদের নিয়ে আলাদা করে বৈঠক করবেন। নির্বাচনের রণ কৌশল ঠিক করতেই রাজ্য সভাপতির এই বৈঠক এটা পরিষ্কার স্বীকার করে নেন বিজেপি নেতৃত্ব।

এদিকে, ওই মাঠেই ২৬ নভেম্বর বিধানসভা ভিত্তিক সভা করবে তৃণমূল কংগ্রেস। সেখানে মিঠুনের পাল্টা দলীয় সাংসদ তথা অভিনেতা শত্রুঘ্ন সিনহাকে উপস্থিত করতে উদ্যোগী হয়েছে জেলা তৃণমূল। বিজেপির পাল্টা সভা কি না? এর প্রতিবাদ করে দলের জেলা সভাপতি সৌমেন বেলথরিয়া বলেন, “কোন দল কোথায় কী সভা করছে আমাদের দেখার সময় নেই আগ্রহও নেই। আমাদের সরকার জনমুখী প্রচুর প্রকল্প চালু করেছে। সেগুলি সর্বাধিক মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়ায় আমাদের লক্ষ্য।” এখন জমজমাট পুরুলিয়ার রাজনৈতিক ক্ষেত্র ভূমি হয়ে উঠছে লোধুড়কা।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here