আমফানে বিপর্যস্ত রাজ্যে প্রাণহানি ৭২ জনের, পরিবারপিছু আড়াই লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ মুখ্যমন্ত্রীর

রাজেন রায়, কলকাতা, ২১ মে: একদিকে করোনা সংক্রমণের আতঙ্কে এমনিতেই বিপর্যস্ত ছিল বাংলা। তার ওপর মরার ওপর খাঁড়ার ঘা-র মতো রাজ্যকে প্রায় গুঁড়িয়ে দিয়ে গেল ঘূর্ণিঝড় আমফান। এই বিধ্বংসী ঘূর্ণিঝড়ে রাজ্যে মৃত্যু হয়েছে ৭২ জনের। মৃতদের পরিবার পিছু আড়াই লক্ষ টাকা ক্ষতিপূরণ ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী। তবে স্বাভাবিক ছন্দে ফিরতে ১০-১২ দিন সময় লাগবে বলে জানান তিনি।

এ দিন নবান্নে মুখ্যমন্ত্রী জানান, আমফানের জেরে গুড়িয়ে গিয়েছে দুই ২৪ পরগণা, পূর্ব মেদিনীপুর এবং কলকাতা সহ গোটা রাজ্য। উপকূলবর্তী এলাকা বেশিরভাগ ক্ষেত্রে প্রায় ধ্বংস হয়ে গিয়েছে। কলকাতায় ১৫ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছে৷ উত্তর ২৪ পরগনায় আমফানে ১৭ জনের মৃত্যু, দক্ষিণ ২৪ পরগনায় মৃত ৭, হাওড়ায় মৃত্যু ৩ জনের, হুগলিতে মৃত্যু ৪ জনের, পূর্ব মেদিনীপুরে ৬ জনের, পশ্চিম মেদিনীপুর থেকেও ২ জনের মৃত্যুর খবর এসেছে।

এছাড়াও পূর্ব বর্ধমানে ১ জন, নদিয়ায় ৪ জনের মৃত্যু, সুন্দরবনে ৪ জনের মৃত্যু, ডায়মন্ড হারবার থেকে ৮ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছে। পূর্ব মেদিনীপুর ৬, রানাঘাট থেকে ৬ ও বারুইপুর থেকে ৬ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছে।

এরপরেই রাজ্যে আমফানে মৃতদের পরিবারকে আড়াই লক্ষ টাকা করে দেওয়ার কথা ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ তিনি বলেন,‘এই দুর্যোগে যারা প্রাণ হারিয়েছেন, তাদের পরিবারকে সহানুভূতি জানানোর ভাষা নেই আমার৷ তবু, এই টাকাগুলো পেয়ে মানুষের যদি কিছুটা উপকার হয়৷’ রাজ্যে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকাগুলো ঘুরে দেখার জন্য মন্ত্রীদের কাজ ভাগ করে দেন মুখ্যমন্ত্রী। নিজেও বিভিন্ন জেলা ঘুরে দেখতে যাবেন বলে জানান তিনি।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here