করোনা নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী ও মুখ্যসচিবের তথ্য ভিন্ন, অভিযোগ দিলীপ ঘোষের

আমাদের ভারত, কলকাতা, ২৬ এপ্রিল: করোনার কিট নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী ও মুখ্যসচিবের তথ্য ভিন্ন। রবিবার সল্টলেকে এইকথা জানান বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তিনি বলেন, করোনা নিয়ে রাজ্যের তথ্যের কোনও বিশ্বাসযোগ্যতা নেই। কারণ মুখ্যমন্ত্রী নিজে একরকম তথ্য দিচ্ছেন। আবার পরেরদিন রাজ্যের মুখ্যসচিব অন্য তথ্য দিচ্ছেন। তারপর রাজ্যের স্বাস্থ্য দফতরের আলদা তথ্য। এমনকি রাজ্যের ওয়েবসাইডেও আলাদা তথ্য পাওয়া যাচ্ছে বলে অভিযোগ করেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি। তাই এই সরকারের কোনও বিশ্বাসযোগ্যতা নেই, রবিবার সল্টলেকে নিজের বাড়িতে সাংকাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এই অভিযোগ করেন দিলীপ ঘোষ।

তাঁর আরও অভিযোগ, রাজ্য সরকারের পুলিশ ইচ্ছে করে বিজেপির সাংসদ, বিধায়কদের ত্রাণের কাজে বাধা দিচ্ছে। যার জন্য এদিন সল্টলেকে রাজ্য প্রশাসনের বিরুদ্ধে ধর্নায় বসেছেন দিলীপ ঘোষ। তার সঙ্গে এদিন ধর্নায় বসেছিলেন বিজেপির সাধারণ সম্পাদক সায়ন্তন বসু। রাজ্য বিজেপির প্রতীকি ধর্নায় এদিন দলের সব রাজ্য নেতারাই ধর্নায় বসেছেন।

দিল্লিতে পুলিশের বিরুদ্ধে ধর্নায় বসেছেন সহকারি পর্যবেক্ষক অরবিন্দ মেনন। তার সঙ্গে ছিলেন বিষ্ণুপুরের সাংসদ সৌমিত্র খাঁ। অন্যদিকে কলকাতায় ধর্নায় বসেছেন দলের সাধারণ সম্পাদক প্রতাপ ব্যানার্জি। হাওড়ায় ধর্নায় বসেছেন রাজ্য বিজেপির আরেক সাধারণ সম্পাদক সঞ্জয় সিং। সকাল এগাড়োটা নাগাদ ধর্নায় বসার কথা থাকলেও কর্মসূচি পালন করতে অনেক রাজ্য বিজেপি নেতারাই একটু দেরি করেন। কারণ সকাল ১১টা নাগাদ দেশের প্রধানমন্ত্রী দেশের মানুষের উদ্দেশ্যে মন কি বাতে ভাষণ দিয়েছেন। সেই ভাষণ শোনার পরেই দলের নেতারা ধর্নায় বসেছেন।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here