এবার মুসলমানদের দিয়েই মুসলমানদের নাগরিকত্ব আইন বোঝাবেন বিজেপি নেতৃত্ব

তারক ভট্টাচার্য
আমাদের ভারত, ১৫ জানুয়ারি: সম্প্রতি ফুরফুরা শরিফের পীরজাদা ত্বহা সিদ্দিকি বলেছেন, হিন্দুরাষ্ট্রের লক্ষ্যে তৈরি করা নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে হিন্দুরাই প্রতিবাদ জানাবে। এবার সংংশোধিত নাগরিকত্ব আইন ইস্যুতে সেই পথে হেঁটেই মুসলিম সম্প্রদায়ের নেতাদের দিয়েই নাগরিকত্ব আইনের পক্ষে প্রচারে নামতে চলেছে রাজ্য বিজেপি। প্রচারে নামানোর আগে এই ইস্যুতে দলের সংখ্যালঘু মোর্চার নেতাদের নিয়ে কর্মশালারও আয়োজন করলেন রাজ্য বিজেপি নেতৃত্ব। মঙ্গলবার কলকাতার ভারত সভা হলে এই কর্মশালা আয়োজিত হয়। এই কর্মশালায় রাজ্য বিজেপির সংখ্যালঘু মোর্চার নেতা এবং মোর্চার জেলা প্রতিনিধিরা ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন রাজ্য বিজেপির অন্যান্য নেতৃত্ব। তাঁরা জানান, এর পর জেলায় জেলায় এমন কর্মশালার আয়োজন করবে দলের সংখ্যালঘু মোর্চা।

বর্তমানে দেশজুড়ে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের বিরুদ্ধে আন্দোলন চলছে। এরাজ্যে সেই আন্দোলন শাসক দল তৃণমূল কংগ্রেসের হাত ধরে ব্যাপক আকার নিয়েছিল। শুধু তাই নয়, এই আন্দোলনে রাজ্য এবং কেন্দ্রের সম্পত্তির বিপুল পরিমাণ ক্ষয়ক্ষতিও হয়েছে। মূল প্রতিবাদ হয়েছে মুসলিম জনগোষ্ঠী অধ্যুষিত জেলায়। পাশাপাশি বিরোধীরা প্রায় প্রতিদিনই অভিযোগ করছেন, সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের মাধ্যমে রাজ্যের মুসলিম জনগোষ্ঠীকে অনুপ্রবেশকারী বলে চিহ্নিত করার চেষ্টা চালাচ্ছেন রাজ্য বিজেপি নেতৃত্ব। তৃণমূল-সহ বিরোধী দলগুলোর এই প্রচার রাজ্যের মুসলিম সম্প্রদায়ের মধ্য ভালোই প্রভাব ফেলেছে বলেই রাজ্য বিজেপি নেতৃত্ব মনে করছেন।

সেই কথা মাথায় রেখেই বিরোধীদের অভিযোগ ভোঁতা করে দিতে ইতিমধ্যে রাজ্যজুড়ে ‘জাগরণ যাত্রা’ শুরু করেছেন বিজেপি নেতৃত্ব। এরই পাশাপাশি, ‘জনসম্পর্ক অভিযান’-এর মাধ্যমে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের পক্ষে বাড়ি বাড়ি প্রচারেও নেমেছেন রাজ্য বিজেপির নেতা-কর্মীরা। এই পরিস্থিতিতে সংখ্যালঘু অধ্যুষিত এলাকা থেকেই প্রচারে বাধা আসছে। সেই ক্ষত নিরাময় করতে এবার তাই সংখ্যালঘুদের দিয়েই সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন সম্পর্কে সংখ্যালঘু জনতার ভুল ধারণা দূর করতে চায় বিজেপি।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here