উপসর্গহীন করোনা আক্রান্তদের আর টেস্ট না করার সিদ্ধান্ত রাজ্যের

রাজেন রায়, কলকাতা, ১৪ জুন: কথায় আছে বিপদ ঘটার আগে সতর্কতা জরুরি। আর সেই কারণেই রাজ্যের করোনা আক্রান্ত উপসর্গহীন বা অসুস্থ সকলেরই করোনা টেস্ট করছিল রাজ্য স্বাস্থ্য দফতর। যাতে উপসর্গহীন অবস্থায় থাকলেও করোনা ধরা পড়লে আগাম সর্তকতা নিয়ে মানুষ সুস্থ থাকতে পারে। কিন্তু গোটা দেশ তথা রাজ্যে যে হারে করোনা সংক্রমণের সংখ্যা বাড়ছে, তাতে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রক থেকে রাজ্য স্বাস্থ্য দফতর সকলেই আগে অসুস্থদের প্রাধান্য দেওয়ার কথা বিবেচনা করছেন। আর সে কারণেই উপসর্গহীন করোনা আক্রান্তদের পরীক্ষা থামিয়ে এবার শুধুমাত্র করোনা আক্রান্ত অসুস্থদের নমুনা পরীক্ষার দিকে জোর দিল পশ্চিমবঙ্গ।

কেন্দ্রীয় সরকারের পর্যবেক্ষণের ওপরে ভিত্তি করেই পশ্চিমবঙ্গে উপসর্গহীন করোনা রোগীদের পরীক্ষা বন্ধ হতে চলেছে বলে জানিয়েছে রাজ্য সরকার।
সম্প্রতি কেন্দ্রীয় সরকারের এক রিপোর্টে বলা হয়, উপসর্গহীন করোনা রোগীদের কোনও ঝুঁকি নেই। অনেক ক্ষেত্রে দেখা গিয়েছে, উপসর্গহীন আক্রান্তরা নিজে থেকেই সেরে উঠেছেন। কিন্তু তাদের দিকে নজর দিতে গিয়ে অনেক করোনা আক্রান্ত অসুস্থরা নাগালের বাইরে থেকে যাচ্ছেন। তাই অসুস্থদের সুস্থ করার দিকে নজর দেওয়া বেশি জরুরি। আর যদি কোন উপসর্গহীন ব্যক্তি অসুস্থ হন, সে ক্ষেত্রে তাকে চিহ্নিত করে দ্রুত সুস্থ করার দিকেও নজর দেওয়া যেতে পারে।

রাজ্যের দাবি, এমনিতেই ভিনরাজ্য থেকে শ্রমিকরা ফেরত আসার পর করোনা আক্রান্তের সংখ্যা হু হু করে বাড়ছে। এই পরিস্থিতিতে উপসর্গহীন রোগীদের থেকে গুরুতর সংক্রমিত রোগী খুঁজে বার করা বেশি দরকারি। তাই কেন্দ্রের এই রিপোর্টকে হাতিয়ার করে পশ্চিমবঙ্গে উপসর্গহীন আক্রান্তদের পরীক্ষা বন্ধ করে দিল রাজ্য।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here