লর্ডসের টিকিট কনফার্ম করতে পয়া মাঠ ম্যাঞ্চেস্টারে চোখ কোহলির

লর্ডসের টিকিট কনফার্ম করতে পয়া মাঠ ম্যাঞ্চেস্টারে চোখ কোহলির

আমাদের ভারত ডেক্স, ৯ জুলাই: ফেভারিট হিসেবে প্রথম সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের মুখোমুখি হচ্ছে টিম ইন্ডিয়া। তবে একদিকে বৃষ্টি অন্যদিকে প্রত্যাশার চাপ কিছুটা হলেও কোহলি ব্রিগেডকে চাপে রাখছে। সেই তুলনায় কিছুটা হলেও চাপমুক্ত নিউজিল্যান্ড।

আজ থেকে ১১ বছর আগে ২০০৮ সালে অনূর্ধ্ব ১৯ বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে ভারত নিউজিল্যান্ডের মুখোমুখি হয়েছিল। সেই সময় ভারতের অনূর্ধ্ব ১৯ দলের অধিনায়ক ছিলেন বিরাট কোহলি অন্যদিকে নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক ছিলেন কেন উইলিয়ামস। অদ্ভুতভাবে আজ ম্যাঞ্চেস্টারের ওল্ড ট্র‍্যাফোর্ডের মাঠে টস করতে নামছেন সেই কোহলি ও উইলিয়ামস। মাত্র একটা ম্যাচ হেরে সেমিফাইনালে উঠেছে টিম ইন্ডিয়া। অন্যদিকে রাউন্ড রবিন লিগে টানা তিনখানা ম্যাচ (পাকিস্তান, অস্ট্রেলিয়া, ইংল্যান্ড) এর কাছে হেরে সেমিফাইনালে উঠেছে নিউজিল্যান্ড। ফলে খাতায়-কলমে ফেভারিট হিসেবে ম্যানচেষ্টারে মাঠে নামছে কোহলিরা। যদিও ভারতীয় দলের কোচ রবি শাস্ত্রী খেলোয়াড়দের সতর্ক করে দিয়েছেন ফেভারিটরা সব সময় জেতে না, যে কোন মুহূর্তে বদলে যেতে পারে খেলার রঙ। তাই প্রথম থেকেই সাবধানী টিম ইন্ডিয়া।

তবে বাইশ গজে নামার আগে বৃষ্টি ভারতকে ভাবাতে শুরু করেছে। এক্ষেত্রে টস নির্ধারণ ম্যাচের ভাগ্য নির্ধারণে অনেক গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠবে বলে মনে করছেন ক্রিকেট বিশেষজ্ঞরা। পরিসংখ্যান বলছে চলতি বিশ্বকাপের শেষ ২০ ম্যাচে টসে জিতে আগে ব্যাট করে জয় এসেছে ১৬ বার । আর সেমিফাইনালের মতো হাইভোল্টেজ ম্যাচে তাই টসে জিতে ব্যাট করে নিতে চাইবে দুটি দলই।

প্রাক্তন অজি তারকা জেফ থমসন মনে করছেন ওল্ড ট্র্যাফোর্ডের বাইশ গজ হবে কিছুটা উপমহাদেশের মতো। উইকেটে রান থাকবে প্রথমদিকে। বল খুব ভালোভাবে ব্যাটে আসবে এবং পরের দিকে খেলা যত গড়াবে বল নিচু হয়ে আসার সম্ভাবনা আছে। সে ক্ষেত্রে স্পিনাররা বাড়তি সুবিধা পাবে। ফলে টসে জিতে কোহলি কিংবা উইলিয়ামস আগে ব্যাট করে নেওয়ার চেষ্টা করবে।

নিউজিল্যান্ড শেষ তিন ম্যাচে হেরে গেলেও তাদের বোলিং লাইনআপ রোহিত, কোহলিদের কিছুটা হলেও চাপে রাখবে। পেসার ট্রেন্ট বোল্ট কিংবা লকি ফার্গুসন একদিকে যেমন দুরন্ত বোলিং করছে পাশাপাশি তারা রানও চেক করে দিচ্ছে। কেন উইলিয়ামসন প্রথম থেকেই রোহিত, কোহলি বিরাট কিংবা লোকেশ রাহুলকে তুলে নিয়ে ভারতের মিডল অর্ডারের দুর্বলতা কে কাজে লাগানোর চেষ্টা করবে। তবে প্রথমে ব্যাট করলে ৩২৫ রানের কম রান করলে কিন্তু সেই দল দ্বিতীয়ার্ধে স্বস্তিতে ফিল্ডিং করতে পারবে না এমনটাই অভিমত থমসনের।

ভারত মূলত তাকিয়ে আছে রোহিত শর্মা, লোকেশ রাহুল, বিরাট কোহলি, বুমরাদের দিকে। শ্রীলংকার অধিনায়ক দ্বিমুথ করুনারত্নে মনে করেন, ভারতের বিশ্বকাপ জেতার খুব ভালো এবার সুযোগ আছে, ওদের হাতে গেলে বিপক্ষকে খুব ভালো খেলতে হবে। দক্ষিণ আফ্রিকার অধিনায়ক দুপ্লেসি মনে করছেন বড় ম্যাচ জেতার ব্যাপারে ভারতীয় দল অন্যদের থেকে এগিয়ে আছে। ভারতের প্রাক্তন তারকা কৃষ্ণমাচারি শ্রীকান্তের মতে রোহিত শর্মা এবং যশপ্রীত বুমরাহর উপর নির্ভর করছে ভারতের বিশ্বকাপে ফাইনালে ওঠার স্বপ্ন। নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে যদি ভারতের এই মারকাটারি খেলা বজায় থাকে তাহলে টিম ইন্ডিয়ার ফাইনালে ওঠার পথ খুব সহজ হয়ে যাবে। তবে তিনি ভারতীয় দলকে সতর্ক করেছেন নিউজিল্যান্ডকে হালকাভাবে নিলে তাদের মুশকিলে পড়তে হবে। লিগের ম্যাচে ভারত বনাম নিউজিল্যান্ড এর ম্যাচ বৃষ্টির কারণে ভেস্তে গিয়ে ছিল। তবে নিউজিল্যান্ডকে চাপে রাখছে বুমরার গতি। পাশাপাশি রোহিতের ব্যাটিং।

এছাড়া ছন্দে আছে লোকেশ রাহুল, বিরাট কোহলি ও হার্দিক পান্ডিয়ারা। তবে এই দিন রবীন্দ্র জাদেজার খেলার সম্ভাবনা আছে। জাদেজা টিমে ঢুকলে ভারতের লোয়ার অর্ডার ব্যাটিং শুধু মজবুতই হবে না ও পাশাপাশি ১০ ওভার হাত ঘোরানোর ধরার ক্ষমতা রাখে জাদেজা। সঙ্গে তার ফিল্ডিং ভারতের বাড়তি পাওনা। বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন যেহেতু পিচ খুব নিষ্প্রাণ হতে চলেছে তাই স্পিনাররা বাড়তি সুবিধা পেতে পারে।সে ক্ষেত্রে চহাল, জাদেজা কিংবা কেদার যাদব আজ ম্যাজিক দেখাতে পারে। অন্যদিকে নিউজিল্যান্ডের অধিনায়ক উইলিয়ামসন এবং বাঁহাতি ওপেনার কলিন মুনরো ছাড়া কেউ ভালো স্পিন খেলতে পারে না যেটা ভারতকে এগিয়ে রাখবে। তবে বৃষ্টি হলে ট্রেন্ট বোল্ট কিংবা লকি ফার্গুসন ভয়ঙ্কর হয়ে উঠতে পারে। অধিনায়ক উইলিয়ামস ছাড়া প্রথম সারির কোন ব্যাটসম্যান ফর্মে না থাকাটা ভারতীয়দের স্বস্তি যোগাবে। তবে ব্যাট হাতে মার্টিন গাপটিল জ্বলে উঠলে বুমরা, শামিদের ছন্দ হারিয়ে যেতে পারে। ধারাভাষ্যকার হর্স ভোগলে, বলছেন শুরু থেকেই নিউজিল্যান্ডে মনোবল ভেঙে দিতে হবে। এটা কাজে লাগাতে পারলেই ভারত প্রথম থেকে এগিয়ে যাবে।

তবে ম্যানচেস্টারের মাঠ ভারতের জন্য সব সময় পয়া মাঠ। ১৯৮৩ সালে ম্যানচেষ্টারে লিগের ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে হারিয়ে ভারত তাদের আত্মবিশ্বাস ফিরে পেয়েছিল। এবার ম্যানচেস্টার থেকেই লর্ডসের টিকিট কনফার্ম করে নিতে চাইছে টিম কোহলি।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

3 − 3 =