পুড়শুড়ায় তৃণমূল নেতা কর্মীদের বেধড়ক মার, অভিযোগ বিজেপির বিরুদ্ধে

আমাদের ভারত, আরামবাগ, ৪ ডিসেম্বর: তৃণমূলের পঞ্চায়েত সদস্য সহ তিন কর্মীকে বেধড়ক মারধর। আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাঁদের আরামবাগ মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এই ঘটনায় অভিযোগের তীর বিজেপীর দিকে। ঘটনাটি ঘটেছে পুড়শুড়া থানার সৈয়দপুর সিনেমা তলা এলাকায়।

আহত তৃণমূল নেতা কর্মীদের নাম পিন্টু কোটাল , হাফিজুর রহমান এবং পিরু। এই ঘটনায় বিজিপির বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের হয়েছে। জানা গেছে, আহত পঞ্চায়েত সদস্য পিন্টু কোটালের অভিযোগ, মঙ্গলবার রাতে তিনি হাফিজুর এবং পিরুর সঙ্গে নিজের দোকানে বসে ছিলেন। হঠাৎ করেই বেশ কয়েকজন বিজেপির লোকজন দোকানে ঢুকে তাঁদের অশ্লীল ভাষায় গালিগালজ করতে থাকে। তার প্রতিবাদ করতে গেলে তাদের লাঠি, রড দিয়ে মারধর করা হয়। পিন্টুবাবু বলেন, ”আমাদের ব্যবসার কিছু টাকা পয়সা লুট করে নিয়ে যায় চলে যায় বিজেপিআশ্রিত দুষ্কৃতীরা। আহতদের আশঙ্কাজনক অবস্থায় স্থানীয় বাসিন্দারা উদ্ধার করে আরামবাগ মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি করেন।

এই ঘটনায় তৃণমূলের তরফ থেকে পুড়শুড়া থানায় বিজেপির বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। বিজেপির আরামবাগ জেলা সাংগঠনিক সভাপতি বিমান ঘোষ বলেন, এই মারধরের ঘটনায় বিজেপির কোনও কর্মী যুক্ত নয়। এটা তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব। নিজেরা মারামারি করে বিজেপিকে বদনাম করার জন্যই বিজেপির ঘাড়ে দোষ চাপাচ্ছে।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here