ঘনঘন হিন্দুদের ধর্মীয় অনুষ্ঠানে তৃণমূল মন্ত্রীর যোগদান, কটাক্ষ বিজেপির

10

আমাদের ভারত, কোচবিহার, ২৩ ফেব্রুয়ারিঃ উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী রবীন্দ্র নাথ ঘোষের বিভিন্ন পুজোয় ও কীর্তনে অংশগ্রহন নিয়ে কটাক্ষ ছুড়ে দিয়েছে বিজেপি। পাল্টা বিজেপির সমালোচনায় মন্ত্রী। যা নিয়ে কোচবিহারের রাজনীতিতে শুরু হয়েছে বিতর্ক।

সম্প্রতি কয়েক মাসে কোচবিহারে হিন্দুদের ধর্মীয় অনুষ্ঠানে দেখা যাচ্ছে উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী রবীন্দ্র নাথ ঘোষকে। কোথাও কীর্তনে গিয়ে বাতাসা ছেটাচ্ছেন, আবার কোথাও শিব পুজায় গিয়ে পঙক্তি ভোজনে করছেন দই চিড়ে। প্রায় প্রতিদিন এই ধরনের ধর্মীয় অনুষ্ঠানে তাঁকে দেখা যাচ্ছে। অনেকেই মনে করছেন এর পেছনে রয়েছে ভোট অংক। গত লোকসভা নির্বাচনে তৃণমূল থেকে সরে যে ভাবে হিন্দু ভোট বিজেপিতে গিয়েছে তাতেই সিঁদুরে মেঘ দেখছে তৃণমূল, তাই মন্ত্রীর পুজাআর্চনায় উপস্থিত হওয়া মানে ড্যামেজ কন্ট্রোলের চেষ্ঠা বলে মনে করছে বিজেপি।

আর এই নিয়ে কটাক্ষ ছুড়ে দিয়েছে বিজেপি, বিজেপির দাবি, লোকসভা নির্বাচনের আগে একটি বিশেষ সম্প্রদায়ের অনুষ্ঠানে দেখা যেত মন্ত্রীকে, আর লোকসভা নির্বাচনের পর তাকে হিন্দু ধর্মের অনুষ্ঠানে দেখা যাচ্ছে। বিজেপির কোচবিহার জেলা সাধারন সম্পাদক সঞ্জয় চক্রবর্তী বলেন, “ লোকসভা নির্বাচনের পর নতুন ভেক ধরেছেন তৃণমূল নেতারা, তবে মানুষ আর তাদের পাশে নেই, তৃণমূলের চালাকি মানুষ বুঝে গেছে।” তার আরো দাবি, মন্ত্রী রবীন্দ্র নাথ ঘোষ বিনা আমন্ত্রনে বিভিন্ন ধর্মীয় অনুষ্ঠানে গিয়ে প্রচার পেতে চাইছেন।

যদিও বিজেপির এই কটাক্ষের জবাব দিয়েছেন উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী রবীন্দ্র ঘোষ। তাঁর দাবি মন্দির, মসজিদ, গির্জায় যাওয়া আমাদের সংস্কৃতি, বিজেপির থেকে তা শিখতে হবে না। বিজেপি হিন্দু ধর্মের ঠিকাদার নয়। সব মিলিয়ে এই নিয়ে জেলা জুড়ে শুরু হয়ছে আলোচনা।
দেখুন ভিডিও

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here