ঝাড়গ্রামে জ্ঞানেশ্বরী কাণ্ডে নিহতদের প্রতি শ্রদ্ধা জানালো তৃণমূল

অমরজিৎ দে, ঝাড়গ্রাম, ২৭ মে: ২০১০ সালের ২৭ শে মে দক্ষিণ পূর্ব রেলওয়ে খড়্গপুর- টাটা রেল লাইনের মাঝে ঝাড়গ্রাম জেলার রাজবাঁধ এলাকায় জ্ঞানেশ্বরী এক্সপ্রেস ট্রেনে ভয়াবহ দুর্ঘটনার ঘটনা ঘটে। ওই দুর্ঘটনায় ১৪৮ জন ট্রেন যাত্রীর মৃত্যু হয়েছিল। আহত হয়েছিল বহু ট্রেন যাত্রী। যাদের মধ্যে এখনও অনেকেই নিখোঁজ রয়েছেন।

তৎকালীন রেলমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ওই দুর্ঘটনার পর ঘটনাস্থলে ছুটে এসেছিলেন। তিনি আহতদের যেমন চিকিৎসার দ্রুত ব্যবস্থা করেছিলেন। তেমনি মৃতদের পরিবারের পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। সেই দিন থেকে প্রতিবছর তৃণমূল কংগ্রেসের পক্ষ থেকে ওই এলাকায় জ্ঞানেশ্বরী কান্ডে নিহতদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে এক স্মরণসভার আয়োজন করা হয়। প্রতিবছর ২৭ মে ওই এলাকায় জ্ঞানেশ্বরী ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহতদের প্রতি শ্রদ্ধা জানানোর জন্য এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করে তৃণমূল কংগ্রেস।

২৭ মে শুক্রবার ঝাড়গ্রাম জেলার ঝাড়গ্রাম ব্লকের রাজবাঁধ এলাকায় জ্ঞানেশ্বরী কান্ডে নিহতদের প্রতি মোমবাতি জ্বালিয়ে তৃণমূল কংগ্রেসের পক্ষ থেকে শ্রদ্ধা জানানো হয়। ওই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী চূড়ামণি মাহাত, গোপীবল্লভপুরের বিধায়ক ডাঃ খগেন্দ্রনাথ মাহাত সহ তৃণমূল কংগ্রেসের নেতা ও কর্মীরা।

বিধায়ক ডাঃ খগেন্দ্র নাথ মাহাতো বলেন, জ্ঞানেশ্বরী ট্রেন দুর্ঘটনার কথা আমরা ভুলে যায়নি। তাই জ্ঞানেশ্বরী ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহতদের প্রতি তিনি শ্রদ্ধা জানাই সেই সঙ্গে নিহতদের পরিবারকে সমবেদনা জানান। আগামী দিনে ওই এলাকায় একটি শহিদ বেদী তৈরি করা হবে বলে তিনি জানান। সেই শহিদ বেদীতে প্রতিবছর শহিদদের শ্রদ্ধা জানানোর জন্য তৃণমূল কংগ্রেসের পক্ষ থেকে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে বলে তিনি জানান।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here