রাজ্য ইউজিসি গাইডলাইন মানতে নারাজ থাকলেও পরীক্ষা নেবে বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ

রাজেন রায়, কলকাতা, ২৩ জুলাই: কেন্দ্রীয় সরকারের বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের গাইডলাইনের বিরুদ্ধে সরাসরি বিদ্রোহ আগেই ঘোষণা করেছে রাজ্য উচ্চ শিক্ষা দফতর। করোনা পরিস্থিতিতে সেপ্টেম্বরে বিশ্ববিদ্যালয়গুলিতে ফাইনাল পরীক্ষা নেওয়ার কথা জানিয়েছিল বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন। কিন্তু এই গাইডলাইন মানতে না চেয়ে তা পুনর্বিবেচনার আবেদন জানিয়ে প্রধানমন্ত্রীকে পর্যন্ত চিঠি লিখেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কিন্তু সূত্রের খবর, এর মধ্যে রাজ্যেরই কেন্দ্রীয় বিশ্ববিদ্যালয় বিশ্বভারতী ইউজিসি’র গাইডলাইন মেনে অফলাইনে পরীক্ষার প্রস্তুতি নিতে শুরু করেছে। নভেম্বরের মধ্যে পরীক্ষা পদ্ধতি সম্পূর্ণ করা হবে, এই মর্মে বিজ্ঞপ্তি জারি করেছেন বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ, যা সম্পূর্ণ রাজ্যের শিক্ষা নীতির পরিপন্থী।

বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ইউজিসি’র গাইডলাইন অনুসারে অফলাইন পরীক্ষা নেওয়া হবে। ছাত্রছাত্রীদের বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্যাম্পাসে গিয়ে সমস্ত রকম স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষা দিতে হবে। নভেম্বর মাস শেষ হওয়ার আগেই এই পরীক্ষা সম্পূর্ণ হবে। পরীক্ষাসূচি খুব তাড়াতাড়ি জানিয়ে দেওয়া হবে। নির্দেশিকায় আরো জানানো হয়েছে,পরীক্ষা দেওয়ার জন্য স্নাতক এবং স্নাতকোত্তর স্তরের ফাইনাল সেমিস্টারের ছাত্রছাত্রীদের আগস্ট মাসের শেষে বিশ্বভারতীর ক্যাম্পাসে চলে যেতে হবে। প্রথম দু’সপ্তাহ তাদের কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে। এর পরে পরীক্ষা শুরু হবে।

রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় স্পষ্ট ভাষায় জানিয়েছেন, ইউজিসি-র নতুন গাইডলাইন তিনি সমর্থন করছেন না। যদিও রাজ্যের সিদ্ধান্তের বিপক্ষেই গেল কেন্দ্রীয় বিশ্ববিদ্যালয় বিশ্বভারতী। ট্রেন চলাচল যখন সম্পূর্ণ বন্ধ, তখন কি করে ছাত্র ছাত্রীরা ক্যাম্পাসে ফিরবে তা নিয়ে চিন্তিত অভিভাবকরা।

প্রসঙ্গত, কলেজ বা বিশ্ববিদ্যালয়ের ফাইনাল পরীক্ষা বাধ্যতামূলক এবং তা ৩০ সেপ্টেম্বরের মধ্যেই শেষ করতে হবে। আগেই এমনটা জানিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন। পরীক্ষা, মূল্যায়ন ও ভর্তি প্রক্রিয়ার সঙ্গে যুক্ত শিক্ষাকর্মী এবং শিক্ষকদের প্রয়োজন মতো শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে হাজিরার নির্দেশও দিয়েছে কেন্দ্র। কিন্তু এই বিষয়ে রাজ্য সরকারের সমর্থন না থাকলেও কার্যত কেন্দ্রীয় ঘোষিত নীতির পথে হাঁটলেন বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here