নন্দকুমারে স্বামীকে খুনে অভিযুক্ত স্ত্রী ও তার প্রেমিককে সাতদিনের পুলিশি হেফাজত দিল আদালত

আমাদের ভারত, পূর্ব মেদিনীপুর, ১২ জুলাই: নন্দকুমারে স্বামীকে খুনে অভিযুক্ত স্ত্রী ও তার প্রেমিককে সাত দিনের পুলিশ হেফাজতের আদেশ দিল তমলুক মহকুমা আদালত।

পরকীয়ার জেরে নন্দকুমার থানার ধান্যঘরের বাসিন্দা শেখ নুর মহম্মদকে তার স্ত্রী ফতেপুরে বাপের বাড়িতে ডেকে নিয়ে গিয়ে খুন করে মাটির নিচে পুঁতে রাখে এবং তার ওপর সিমেন্ট দিয়ে মেঝে করে দেয়। নুর মহম্মদের পরিবারের অভিযোগ ক্রমে পুলিশ তদন্তে নেমে স্ত্রী আসমা বিবি এবং তার প্রেমিক শেখ দুলালকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করে গতকাল নুর মহম্মদের দেহ আসমা বিবির বাপের বাড়ির ভিতর মেঝের নিচে থেকে উদ্ধার করে। এরপর আসমা বিবি এবং শেখ দুলালকে গতকাল গ্রেপ্তার করে নন্দকুমার থানার পুলিশ। আজ অভিযুক্ত আসমা বিবি এবং তার প্রেমিক শেখ দুলালকে তমলুক মহকুমা আদালতে তোলা হয়। বিচারক তাদের সাত দিনের পুলিশ হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছেন।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, আরও কেউ এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত কি না তা তদন্ত করে দেখবে পুলিশ। সরকারি আইনজীবী শফিউল আলী খান জানিয়েছেন, অভিযুক্তদের পক্ষে কোনো আইনজীবী আজ আদালতে দাঁড়ায়নি। পুলিশের আবেদন ক্রমে তমলুক মহকুমা আদালতের ভারপ্রাপ্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট সমতা দাস অভিযুক্তদের কে সাত দিনের পুলিশি হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছেন।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here