লকডাউনের সুযোগ নিয়ে কন্যা দায় থেকে মুক্ত হতে গিয়ে বিপাকে বাবা

সাথী প্রামাণিক, পুরুলিয়া, ৯ মে: লকডাউনের সুযোগে কন্যা দায় থেকে মুক্ত হতে চেয়েছিলেন বাবা। শেষ পর্যন্ত প্রশাসনিক হস্তক্ষেপে তা বন্ধ হয়ে গেল। পুরুলিয়ার ঝালদা ১ ব্লক এলাকার ঘটনা।

কিশোরী স্থানীয় হাই স্কুলের সপ্তম শ্রেণিতে পাঠরতা। পাশের গ্রামের এক দিনমজুরের সঙ্গে স্থানীয় দুর্গা মন্দিরে শনিবার বিয়ের প্রস্তুতি নিয়েছিল মেয়ের পরিবার। এদিন সকালে খবর যায় পুরুলিয়া চাইল্ড লাইনে। তার পরই স্থানীয় প্রশাসন ও পুলিশ গিয়ে বিয়ে বন্ধ করে দেয়। মেয়ে প্রাপ্ত বয়স্ক না হলে বিয়ে দেবেন না। এই বয়ানে মুচলেকা দিলেন কিশোরীর বাবা।

পুরুলিয়া চাইল্ড লাইনের কো-অর্ডিনেটর অশোক মাহাতো জানান, ‘পুরুলিয়া জেলায় নাবালিকা বিবাহের প্রবণতা অনেকটাই কমেছে। তবু লকডাউনের মধ্যেই এই ধরনের ঘটনার খবর আসে আমাদের কাছে। তৎপরতার সঙ্গে তা ঠেকানো হয়। ওই পরিবারের সবাইকে বোঝানো হয় যে কম বয়সে মেয়ের বিয়ে হলে ভয়ঙ্কর পরিণাম হতে পারে। নাবালিকা মেয়েকে বিয়ে না করার বিষয়ে সতর্ক করা হয় ছেলে পক্ষকেও।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here