বন মহোৎসবের মাধ্যমে সুন্দরবনে পাঁচ কোটি ম্যানগ্রোভ লাগানোর কাজ শুরু হল

আমাদের ভারত, দক্ষিণ ২৪ পরগণা, ১৪ জুলাই: মঙ্গলবার রাজ্যে বনমহোৎসবের সূচনা হল। আর এই বন মহোৎসবকে সামনে রেখে গোটা সুন্দরবন জুড়ে পাঁচ কোটি ম্যানগ্রোভ লাগানোর কাজ শুরু করল দক্ষিণ ২৪ পরগণা জেলা প্রশাসন ও বন দফতর। বুলবুল এবং আমফানের প্রবল ঝড়ে ব্যাপক ভাবে ক্ষতি হয়েছে সুন্দরবনের ম্যানগ্রোভ বা বাদাবনের। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এই ক্ষতিপূরণের জন্য সারা সুন্দরবনে পাঁচ কোটি ম্যানগ্রোভ গাছের চারা বসানোর জন্য নির্দেশ দিয়েছেন। মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে এদিন সেই কাজের সূচনা হল। সুন্দরবনের দুলকিতে সুন্দরবন ব্যাঘ্র প্রকল্পের উদ্যোগে ম্যানগ্রোভ গাছের চারা বসানো শুরু হল। অন্যদিকে সুন্দরবনের ঝড়খালিতে জেলা প্রশাসন ও ২৪ পরগণা বন বিভাগের উদ্যোগে এই ম্যানগ্রোভ রোপণের কাজ শুরু হল মঙ্গলবার। আগামী দু’মাসের মধ্যেই গোটা সুন্দরবন জুড়ে এই পাঁচ কোটি ম্যানগ্রোভ চারা সুন্দরবনের এগারটি ব্লকের ২৫০০ হেক্টর জমিতে বসানো হবে।

নদীর ফাঁকা চরগুলিতে এই ম্যানগ্রোভ বসানো হচ্ছে। পাশাপাশি সুন্দরবনের গভীর জঙ্গলের মধ্যে যেখানে ফাঁকা জায়গা রয়েছে সেখানেও এই গাছ বসানো হবে বলে জানানো হয়েছে। আগামী দু’মাসের মধ্যে শেষ হবে এই কাজ। আগামী দু মাস সুন্দরবনের ম্যানগ্রোভ চারা বসানোর কাজে ৮ লক্ষ ১২ হাজার শ্রম দিবস তৈরি হবে। গ্রামের অসংখ্য শ্রমিক, মজুর ও পরিযায়ী শ্রমিক, গ্রামীণ মহিলা এবং পুরুষরা এরফলে উপকৃত হবেন। ১০০ দিনের কাজের প্রকল্পে এই ম্যানগ্রোভ রোপণের কাজ শুরু হয়েছে। এই ম্যানগ্রোভ লাগানোর পাশাপাশি সুন্দরবন ব্যাঘ্র প্রকল্প এবং ২৪ পরগনা বনবিভাগ প্রায় দেড় লক্ষ নারিকেল, আম, জাম, কাঁঠাল, সফেদা গাছের চারা বিতরণ করছে গ্রামবাসীদের মধ্যে। এদিন সুন্দরবনের দুলকি গ্রামের পাশে বিদ্যাধরি নদীর এক কিলোমিটার চরে ম্যানগ্রোভ গাছের চারা বসানো হল। অন্যদিকে, ঝড়খালিতে হেড়োভাঙা নদীর চরে এদিন ম্যানগ্রোভ রোপণের কর্মসূচি শুরু হয়। এদিন বন দফতর এর আধিকারিক ও জেলা প্রশাসনের আধিকারিকরা গাছ লাগানোর কাজে হাত লাগান। বনদপ্তর এর আধিকারিকরা। এই সঙ্গে ঝড়খালিতেও ম্যানগ্রোভ বসানোর কাজ শুরু হয়েছে।

জেলাশাসক পি উল্গানাথন বলেন, “মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে আগামি দু মাসের মধ্যে এই পাঁচ কোটি ম্যানগ্রোভ সুন্দরবন জুড়ে লাগানো হবে”।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here