করোনার টেস্ট কিট আর বিনামূল্যে দেবে না কেন্দ্র, দুশ্চিন্তা বাড়ল রাজ্যের

আমাদের ভারত, ২ সেপ্টেম্বর: এমনিতেই করোনা মোকাবিলায় জেরবার অবস্থা রাজ্যের। তারমধ্যে কেন্দ্রের আরো এক নির্দেশিকা নিয়ে রাজ্যের দুশ্চিন্তা বেড়েছে। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যসংস্থা আইসিএমআরের তরফে রাজ্যের স্বাস্থ্য সচিবকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে এবার থেকে বিনামূল্যে আর করোনা নির্ধারক আরটিপিসিআর কিট দেওয়া হবে না ‌। এবার থেকে খোলাবাজারেই রাজ্য স্বাস্থ্য দপ্তরকে করোনা টেস্ট কিট ও ভিটিএম ম্যাশিন কিনতে হবে।

কেন্দ্রের এই নতুন নির্দেশিকায় বেশ খানিকটা চাপের মুখে পড়েছে রাজ্য। সূত্রের খবর দিন দশেক আগে রাজ্য স্বাস্থ্য সচিবের কাছে কেন্দ্রের এই নির্দেশিকা এসে পৌঁছেছে। তাতে জানানো হয়েছে ১ সেপ্টেম্বর থেকে আর বিনামূল্যে করোনা টেস্ট কিট পাঠাবে না কেন্দ্র। এবার থেকে আরটিপিসিআর কিট এবং লালালা সংরক্ষণের জন্য ভিটিএম মেশিন নগদ অর্থে কিনতে হবে রাজ্যকে।

রাজ্যের স্বাস্থ্য অধিকর্তা অজয় চক্রবর্তী জানিয়েছেন, কেন্দ্রের নির্দেশ জানার সঙ্গে সঙ্গেই আগামী দেড় মাসের জন্য আরটিপিসিআর কিট এবং লালারস সংরক্ষণের ভিটিএম মেশিন মজুদ করা হয়েছে। তবে ভবিষ্যতে এই সংখ্যাটা আরো বাড়াবেন তারা। কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্ত প্রসঙ্গে তাঁর বক্তব্য, ‘কেন্দ্র যদি কিট দিতে না চায় তাহলে রাজ্যকে তা কিনে নিতেই হবে। নমুনা পরীক্ষা তো বন্ধ করা যাবে না। তাতে রাজ্যের খরচ আরো বাড়বে।’

সূত্রের খবর, শুধুমাত্র টেস্ট কিট কিনতে রাজ্যের প্রতিদিন ৮ লক্ষ টাকা বাড়তি খরচ হবে। এর সাথে রয়েছে ভিটিএম মেশিন, সিপলার বা হাই সেনসিটিভ স্পেক্টোমেট্রিকের মতো প্রয়োজনীয় যন্ত্রপাতি। এক্ষেত্রে আইসিএমআর চারটি ভেন্ডার নির্দিষ্ট করে দিয়েছে। সেইসব ভেন্ডারদের কাছ থেকেই টেস্ট কিট ও ভিটিএম কিনবে রাজ্য। তবে করোনা টেস্ট কিট কিনতে যে অতিরিক্ত অর্থ ব্যয় হবে তা নিয়ে স্বভাবতই দুশ্চিন্তা বেড়েছে রাজ্যের।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here