ইসলামপুর মহকুমা আদালত চত্বরে ওয়ারেন্টের আসামিকে ধরতে গিয়ে পুলিশের সাথে ধস্তাধস্তি

স্বরূপ দত্ত, আমাদের ভারত, উত্তর দিনাজপুর, ২৪ সেপ্টেম্বর: ইসলামপুর মহকুমা আদালত চত্বরে ওয়ারেন্টের আসামিকে ধরতে গিয়ে পুলিশের সাথে ধস্তাধস্তি। এই ঘটনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন আসামি পক্ষের আইনজীবী। ঘটনায় আদালত চত্বরে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে।

জানাগেছে, গত ২২ তারিখে চা পাতা চুরির ঘটনায় সজনি মুর্মু নামে এক মহিলাকে গ্রেফতার করে গোয়ালপোখর থানার পুলিশ। সেই মামলার এদিন ছিল রায়দান। ইসলামপুর মহকুমা আদালত সজনি মুর্মুকে জামিনে মুক্ত করেন। সজনি মুর্মুর স্বামী বাবুরাম সরেনকে ওয়ারেন্টের নাম করে গ্রেফতার করার চেষ্টা করে গোয়ালপোখর থানার পুলিশ বলে অভিযোগ। গ্রেফতার করার সময় পুলিশের সাথে এনিয়ে চলে ধস্তাধস্তি। এই ঘটনায় ইসলামপুর আদালত চত্বরে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে। আদালত চত্বর থেকে ওয়ারেন্টের আসামিকে কিভাবে গ্রেফতার করে নিয়ে গেল সে প্রশ্ন তুলছেন আসামি পক্ষের আইনজীবীরা। তারা ইসলামপুর মহকুমা আদালতে এ বিষয়ে একটি অভিযোগ করবেন বলে জানিয়েছেন।

অন্যদিকে, গোয়ালপোখর থানার এসআই রেজাউল করিমকে এই বিষয়ে ফোনে জিজ্ঞেস করা হলে তিনি এই সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেন। তিনি পাল্টা অভিযোগ করেন, তাকে হেনস্থা করা হয়েছে। শুধু তাই নয় তাকে ধাক্কাধাক্কি ও মারধর করা হয়েছে এমনটাই অভিযোগ করেন তিনি।

যদিও এবিষয়ে ইসলামপুর পুলিশ জেলার পুলিশ সুপার শচীন মক্কর জানান, অভিযুক্তের বিরুদ্ধে বেশ কয়েকটি মামলা রয়েছে, তাই তাকে আটক করা হয়েছে। আগামীকাল তাকে আদালতে পেশ করা হবে।

আপনাদের মতামত জানান

Please enter your comment!
Please enter your name here